Unlimited Powerpoint templates, graphics, videos & courses! Unlimited asset downloads! From $16.50/m
Advertisement
  1. Business
  2. Freelance
Business

কিভাবে পার্ট-টাইমে ওয়েবসাইট তৈরি করে মাসে $৫০০০ আয় করবেন

by
Length:LongLanguages:

Bengali (বাংলা) translation by Shakila Humaira (you can also view the original English article)

একসময় আমার কিছু সমস্যা ছিলো। মূলত দুটি সমস্যা। প্রথম সমস্যা হচ্ছে আমি ও আমার স্ত্রী মিলে $২৬,০০০ বেশী আয় করা যাতে পরবর্তী সাড়ে তিন মাসের মধ্যেই আমরা আমাদের ঋণ পরিশোধ করতে পারি।

এটা আমার জন্য বেশ কষ্টকর ছিলো, কারণ আমার মূল কাজের পিছনেই আমার কর্মঘন্টার অধিকাংশ ব্যয় হয়ে যেতো। যার কারণে দ্বিতীয় সমস্যা সময়স্বল্পতা দেখা যেতো। একটি ফুল-টাইম জব এবং পরিবার সামলিয়ে, আমাদের হাতে লক্ষ্য পূরণের জন্য খুব কম সময় থাকতো।

তারপরও আমরা আমাদের লক্ষ্য পূর্ণ করতে সমর্থ হই। ২০১১ সালের ডিসেম্বরের শুরুতে, আমরা আমাদের ঋণের শেষ কিস্তি পরিশোধ করি। এবং আমাদের বিবাহের পরে আমরা এই প্রথম ঋণমুক্ত হলাম।

কিভাবে? প্রতিদিন রাতে ও রবিবারে বিভিন্ন গ্রাহকদের জন্য আমি ওয়েবসাইট তৈরি করেছি। আমার সময় খুব স্বল্প ছিলো, তার উপর অনেক টাকা দরকার। তাই আমার সময়ের সর্বোচ্চ ব্যবহার করা ছিলো খুব দরকার। মানে হচ্ছে, অনেক রাত জেগে কাজ করা এবং ঘুমের স্বল্পতা প্রায় নিশ্চিত ছিলো। কিন্তু তারপরও আমি করেছি এবং পিছনে তাকিয়ে আমি শুধু এটুকুই বলবো যে, আমি বেশ দ্রুতই আমার লক্ষ্য পূর্ণ করেছি।

সম্প্রতি আমি আমার আগের অভিজ্ঞতার কথা ভেবে চিন্তা করেছি যে, আমার পরিবারকে ঋণমুক্ত করতে আমি যেই পথ ও পদ্ধতি অনুসরণ করেছি তা অনেকেরই কাজে লাগতে পারে। আপনার ক্ষেত্রেও আপনি এই পদ্ধতিগুলো ব্যবহার করে দেখতে পারেন।

আপনার সময় যদি খুব কম থাকে, এবং যথেষ্ট পরিমাণ টাকারও প্রয়োজন থাকে, তাহলে আমার ধারনামতে ওয়েবসাইট তৈরি করাই সবচেয়ে ভালো ও জুতসই কাজ। তাহলে চলুন দেখে নেই, যথেষ্ট পরিমাণ লাভসহ এই কাজটি কিভাবে আপনি সুচারুরূপে সম্পন্ন করতে পারবেন।

নিজেকে প্রস্তুত রাখুন

আপনার গ্রাহক কাজ দেয়ার আগে অবশ্যই জানতে চাইবেন, আপনি তাঁর কাজের জন্য প্রস্তুত আছেন কিনা অথবা আপনার সাথে সহজেই যোগাযোগ করা যাবে কিনা। আপনার সম্ভাব্য গ্রাহক যদি প্রয়োজনের সময় আপনার সাথে যোগাযোগ করতে না পারেন, তাহলে কাজপ্রাপ্তি আপনার জন্য কিছুটা কঠিন হয়ে উঠবে। উপরন্তু আপনাকে একাধিক গ্রাহকের সাথে একই সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে হতে পারে। তাই আপনি প্রথমে আপনার সম্ভাব্য গ্রাহকের সাথে যোগাযোগ রেখে তাঁদেরকে আশ্বস্ত করুন যে, আপনি ঠিক কোন সময়ে ওয়েবসাইট তৈরি করার জন্য প্রস্তুত আছেন।

আমি কোন সময়ে কাজ করি তা আমার ব্যক্তিগত ওয়েবসাইটে উল্লেখ করে রেখেছি (যদি আপনি অন্যদের জন্য ওয়েবসাইট তৈরি করেন, তবে আপনার নিজস্ব একটি ওয়েবসাইট প্রয়োজন হবে।)। আমি যাদের জন্য পূর্বে ওয়েবসাইট তৈরি করেছি, তাঁদেরকে সাধারণত ইমেইল করে জানাই যে আমি এখন আবার কাজের জন্য প্রস্তুত আছি। আমি আমার পূর্বের নেটওয়ার্ক কানেকশন আরও বাড়াই এবং আমার প্রথম কিছু প্রজেক্ট তাঁদের সামনে তুলে ধরে শুরু করি।

যদি আপনার ওয়েবসাইট তৈরির উপর আগের কোনও অভিজ্ঞতা না থাকে, তাহলেও ঠিক আছে। আমাদেরকে অবশ্যই কোনও না কোনও জায়গা থেকে কাজ শুরু করতে হয়, এবং তা এই মুহূর্ত থেকে শুরু করলেই ভালো হবে। কিভাবে আপনি ওয়েব ডেভেলপমেন্টের উপর আপনার প্রথম গ্রাহক পাবেন, সে সম্পর্কে জানুন।

হরিণের মত ক্ষিপ্র হয়ে উঠুন

আমি এবং আমার স্ত্রী এ যাত্রা মূলতঃ ডেভ রামসি এর ফিন্যান্সিয়াল পিস ইউনিভার্সিটি প্রোগ্রামটি দেখে শুরু করি। এই প্রোগ্রামের শুরুতে, ডেভ একটা বিষয়ের গুরুত্ব নিয়ে আলোচনা করেন, যাকে তিনি হরিণের ক্ষিপ্রতা বলেছেন। কারণ, যখন কোনও চিতাবাঘ কোনও হরিণের পিছনে ছুটতে শুরু করে, তখন হরিণটা প্রাণপণে দৌড়াতে শুরু করে। কারণ তাঁর বাঁচামরা এই দৌড়ানোর উপরেই নির্ভর করে।

যখন কোনও চিতাবাঘ কোনও হরিণের পিছনে ছুটতে শুরু করে, তখন হরিণটা প্রাণপণে দৌড়াতে শুরু করে। কারণ তাঁর বাঁচামরা এই দৌড়ানোর উপরেই নির্ভর করে।

আমি বুঝতে পারি, আমার লক্ষ্য পূর্ণ করতে আমাকে এরকম  সিরিয়াসই হয়ে উঠতে হবে। আমি যতটা সম্ভব অপ্রয়োজনীয় কাজ থেকে নিজেকে দূরে রাখতে শুরু করলাম, এবং আমার এই ছোট্ট সময়টিকেই আমি যত বেশী কাজে লাগানো সম্ভব, ততটুকু লাগালাম। এর মানে হচ্ছে দেরীতে ঘুমাতে যাওয়া। এবং রবিবারেও কাজ করা (শনিবার দিন কেবল আমি বিশ্রাম নিতাম)। মানে আমার সব কিছুই আমি এর পিছনে ঢেলে দিয়েছি।

আর হ্যাঁ, আমার কাজের পিছনে আমি যেই ত্যাগ স্বীকার করেছি ও মনোযোগ দিয়েছি, তাঁর ফলাফলও পেয়েছি। আপনি যদি পার্ট টাইম ওয়েবসাইট তৈরি করতে চান, তবে আপনাকে এর প্রতি পূর্ণ মনোযোগ দিতে হবে এবং আপনার সংক্ষিপ্ত সময়ের সম্পূর্ণটাই কাজে লাগাতে হবে।

একটি প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করুন

পার্টটাইমে যদি আপনি মাসে $৫০০০ উপার্জন করতে চান, তাহলে আপনাকে দ্রুতগতিতে কাজ করতে হবে। যদি আপনি এখনো না জানেন যে কিভাবে খসড়া থেকে ওয়েবসাইট তৈরি করবেন, তাহলে এই মুহূর্ত থেকে শিখতে শুরু করুন। যদি আপনি এরইমধ্যে জানেন যে কিভাবে ওয়েবসাইট তৈরি করতে হয়, তাহলে এর পাশাপাশি আপনাকে একটি প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করতে হবে।

এক্ষেত্রে, ওয়ার্ডপ্রেস আমার কাছে সবচেয়ে প্রিয় এবং আমি আপনাকে এটাই ব্যবহার করতে বলবো। এটা দিয়ে আপনি খুব সহজেই ট্র্যাক করতে পারবেন, এর পিছনে আছে একটি দক্ষ ও চৌকস ওপেন সোর্স ডেভেলপমেন্ট টিম, কমিউনিটি সাপোর্ট, অসংখ্য থিম অপশন এবং দ্রতগতির সেবা।

ওয়েব ডেভেলপমেন্টের উপর কোনও বই এখনই কিনবেন না, অথবা আপনার লোকাল কলেজে এ সম্পর্কিত কোনও কোর্স করবেন না (যদি না এটা খুব দ্রুত করা যায় এবং একজন আন্তরিক শিক্ষক থাকেন)। এখন আপনাকে কিভাবে যতটা সম্ভব দক্ষ ও কার্যকরভাবে ফলাফল পাওয়া যায়, তার উপর মনোযোগ দিতে হবে। এই সময়ে এমন একটি প্ল্যাটফর্ম অত্যন্ত প্রয়োজন যা এরই মধ্যেই তৈরি করা হয়েছে এবং মান ও জনপ্রিয়তার দিক থেকেও শীর্ষে আছে।

আগে থেকে তৈরি করা থিম ব্যবহার করুন

বর্তমানে ওয়ার্ডপ্রেসের ডিফল্ট থিম আপনার গ্রাহকের চাহিদা পূর্ণ করবে না এবং কিভাবে এইসব থিম কাস্টমাইজ করতে হয় সে সম্পর্কিত জ্ঞানও এক্ষেত্রে আপনার খুব বেশী কাজে লাগবে না। এনভেটো, ফ্রিল্যান্স সুইচের প্যারেণ্ট কোম্পানি, থিমফরেস্ট হচ্ছে ওয়ার্ডপ্রেস থিমের জন্য একটি অসাধারণ মার্কেটপ্লেস। আমি আমার ছোট্ট প্রজেক্ট, $১৫০০- $২০০০ এর প্রজেক্টের জন্য সাধারণত থিম ফরেস্টই ব্যবহার করি।

আপনি কি কখনও আপনার নিজস্ব থিম তৈরি করেছেন? আমি নিশ্চিত আপনি এরকম একটি থিম তৈরি করতে চান। কিন্তু পার্ট টাইম কাজ করে তা করা সম্ভব নয়। আমি যদি এই আর্টিকেল আরও দু বছর আগে লিখতাম, তাহলে হয়তো আমি এত জোর দিয়ে বলতাম না, কারণ আজকাল এর অসাধারণ বিকল্প আছে। কেউ যদি মাত্রই শুরু করে-বিশেষ করে যাদের সময় খুব অল্প – তাঁদের জন্য প্রি-বিল্ট থিমই সবচেয়ে ভালো।

সঠিক পারিশ্রমিক নির্ধারণ করুন

আপনি যদি মাসে $৫০০০+ উপার্জন করতে চান, তাহলে মাত্র কয়েকশ ডলারে ওয়েবসাইট তৈরি করে আপনার পোষাবে না। আপনি কাজটি করলেন কিন্তু আপনার গ্রাহক কাজ অনুযায়ী টাকা দিলো না, তাহলে তো আর হলো না। এজন্যই আপনাকে একটি ন্যায্য মূল্য নির্ধারণ করতে হবে। আপনি একটি প্ল্যাটফর্মের জন্য কি ধরণের সুযোগ -সুবিধা দিতে পারেন ও সেই প্ল্যাটফর্মকে কতটা ব্যবহারবান্ধব করে তুলতে পারেন, তার উপর ভিত্তি করে মূল্য নির্ধারণ করুন।

আপনি যদি মাসে $৫০০০+ উপার্জন করতে চান, তাহলে মাত্র কয়েকশ ডলারে ওয়েবসাইট তৈরি করে আপনার পোষাবে না।

কাজের মান ও দরদাম সম্পর্কে ভালভাবে জানুন এবং একটি ওয়েবসাইট আপনার ব্যবসার জন্য কতটা লাভজনক হবে, সেদিকে মনোযোগ দিন। আমার মতে, আপনি প্রতিটি প্রজেক্টের জন্য কমপক্ষে $২৫০০ পারিশ্রমিক নিবেন।  এবং কিছুতেই কোনও প্রজেক্টের জন্য $১০০০ এর নিচে নিবেন না, যাতে করে এক প্রজেক্ট শেষ করতে এভারেজে $৭৫/ঘণ্টা আয় হয় (তাহলে, আপনি পার্ট টাইম কাজ করে $৫০০০ আয় করতে পারবেন)।

গ্রাহকদেরকে "অসাধারণ" অভিজ্ঞতা প্রদান করুন

মাইকেল হায়েটের নতুন বইয়ে, Platform: Get Noticed in a Noisy World, (অসাধারণ বই) তিনি গ্রাহকদের সন্তুষ্টির গুরুত্ব নিয়ে আলোচনা করেছেন।

আমি এটাতে গুরুত্ব না দিয়ে পারছি না। প্রথম দিনের সাক্ষাৎ থেকে, সেটা ফোন, ব্যক্তিগত বা ইমেইল যেভাবেই হোক না কেন, ওয়েবসাইট লাঞ্চ করা পর্যন্ত আপনার গ্রাহককে তাঁর প্রত্যাশার থেকে বেশি কিছু দিতে সচেষ্ট থাকুন। প্রবাদ আছে, প্রতিশ্রুতি কম, এবং প্রতিদান বেশী।

গ্রাহকদেরকে সন্তুষ্ট করতে প্রচুর সময় দরকার। এবং আপনি যেহেতু পার্ট টাইমে কাজ করছেন, তাই সময় সংক্ষিপ্ত। শক্তির উপর মনোযোগ দিন। তাই এই সময়গুলো কাজে লাগাতে ইতিবাচক মনোভাব রাখুন, এবং গ্রাহককে সন্তুষ্ট করতে সম্ভাব্য সব উপায়গুলোই অনুসরণ করুন।

যখন গাড়িতে থাকবেন, বিছানায় বিশ্রাম নিবেন, অথবা গোসল করবেন, তখন এ সম্পর্কে ভাবুন। নিজেই নিজেকে প্রশ্ন করুন, “কিভাবে আমি আমার গ্রাহককে সন্তুষ্ট করতে পারি?” কোনও প্রজেক্ট শেষে কিছুক্ষন চিন্তা করুন যে, এটা থেকে আপনি নতুন কি শিখলেন এবং পরবর্তী প্রজেক্টে গ্রাহককে সন্তুষ্ট করতে কোন কোন ধারনাসমূহ প্রয়োগ করা যায়, তা একটি খাতায় লিখে রাখুন।

মূল্যায়ন ও রেফারেলের জন্য আগেই বলে রাখুন

কাজ হয়ে গেলে, আপনার গ্রাহক কাজটি কেমন মনে করছে, তা জিজ্ঞাসা করুন। সহজভাবে আপনার গ্রাহককে আপনার সাথে কাজের অভিজ্ঞতা নিয়ে দুতিনটি বাক্য লিখতে বলুন। আপনার গ্রাহককে আপনার সাথে কাজের অভিজ্ঞতা নিয়ে দুতিনটি বাক্য লিখতে বলুন। তাঁদের মূল্যায়নটি নোট করুন ও ওয়েবসাইটে এটা তুলে ধরুন। পরবর্তীতে, রেফারেলের জন্য অনুরোধ করুন!

তাঁদেরকে জিজ্ঞাসা করুন, তাঁরা এমন কাউকে চিনে কিনা, যাদের একটি ওয়েবসাইট লাগবে। তারপর তাঁদের পরামর্শ অনুযায়ী নতুন উদ্যোগ নিন ও তাঁদের দেয়া ঠিকানায় যোগাযোগ করুন। যেকোনো ব্যবসা বাড়ানোর জন্য রেফারেল অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও সেরা উপায়, তাই আপনার গ্রাহককে অন্যদেরকে রেফার করে আপনার সাফল্যের অংশীদার হতে বলুন।

আপনার কাজে দক্ষ হয়ে উঠুন

যখন আপনার অভিজ্ঞতা বাড়বে ও গ্রাহকদের কাছে আকর্ষণীয় হয়ে উঠতে শুরু করবেন, তখন আপনাকে নিজের কাজে আরও দক্ষতা বাড়াতে পড়াশোনার পিছনে কিছু বিনিয়োগ করতে হবে। এখন, আপনি ওয়েব ডেভেলপমেন্ট সম্পর্কিত বিভিন্ন বই ও ব্লগসমূহ পড়তে পারেন। কিছু অনলাইন কোর্সে এলরোল করুন। কি বিষয়ে আপনি দুর্বল তা খুঁজে বের করে সে বিষয়ে দক্ষতা বাড়াতে মনোযোগী হউন।

আগ্রহী বিষয় নিয়ে বিভিন্ন ইভেন্টে যোগ দিন এবং এই বিষয়ে অভিজ্ঞদের সঙ্গে নেটওয়ার্ক গড়ে তুলুন। আপনার অগ্রগামী যারা তাঁদেরকে বিভিন্ন প্রশ্ন করুন এবং তাঁদের বিভিন্ন অভিজ্ঞতা সম্পর্কে জানুন। ওয়েবসাইটের চাহিদা যত বেশি বাড়বে, ততবেশী মানুষ বিভিন্ন ধরণের ওয়েবসাইট তৈরি করতে চাইবে। আপনি যদি ব্যতিক্রম কিছু করতে চান, তবে আপনার কাজে দক্ষ হয়ে উঠতে আপনাকে নিরলস পরিশ্রম করে যেতে হবে।

সফল হয়ে উঠার সাথে সাথে আপনি পর্যাপ্ত বিশ্রামও নিতে পারবেন এবং পুনরায় কাজ করতে শুরু করুন, যতক্ষন না সম্পূর্ণ নিখুঁত ও দক্ষ হয়ে উঠেন।

ফটো ক্রেডিটঃ প্রেসমাস্টারের দ্বারা কিছু স্বত্ত সংরক্ষিত

Advertisement
Advertisement
Advertisement
Advertisement
Looking for something to help kick start your next project?
Envato Market has a range of items for sale to help get you started.